পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খানের ফোনেও মন গললো না নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্নের

খেলা শুরুর কয়েক ঘণ্টা আগে নিরাপত্তার ঝুঁকিতে পাকিস্তান-নিউ জিল্যান্ড সিরিজ স্থগিত হয়েছে। শুক্রবার (১৭ সেপ্টেম্বর) ওয়ানডে ম্যাচ দিয়ে মাঠে নামার কথা ছিল দুই দলের, এর আগেই নিরাপত্তার ঝুঁকিতে স্থগিত হয় সিরিজ।





পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি) এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, নিউ জিল্যান্ড ক্রিকেট পিসিবকে নিশ্চিত করেছে, তারা নিরাপত্তাজনিত বিষয়ে হুমকি পেয়েছে। এর পরেই নিউ জিল্যান্ড এক তরফাভাবে সিরিজ স্থগিতের সিদ্ধান্ত নেয়।

প্রায় ১৮ বছর পর পাকিস্তান সফর করছিল নিউ জিল্যান্ড। ২০০৩ সালে শেষবার পাকিস্তানে সিরিজ খেলেছিল কিউইরা। এবারের সফরে ৩টি ওয়ানডে ও ৫টি-টোয়েন্টি খেলার কথা ছিল।

কিউইদের এমন সিদ্ধান্তে যারপরণাই হতাশ পাকিস্তান ক্রিকেট বোর্ড (পিসিবি)। তাদের দাবি, পাকিস্তানে সফরকারি দলের জন্য যে ধরনের নিরাপত্তা দেয়া হয়, তাতে কোনো শঙ্কার প্রশ্ন নেই।

এমনকি সফরকারিদের আশ্বস্ত করতে খোদ পাকিস্তানের প্রধানমন্ত্রী ইমরান খান ব্যক্তিগতভাবে কথা বলেন নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রী জাসিন্ডা আরডার্নের সঙ্গে। কিন্তু কাজ হয়নি।

পিসিবি এক বিবৃতিতে জানিয়েছে, ‘পিসিবি এবং পাকিস্তান সরকার সফরকারি সব দলের জন্য প্রশ্নাতীত নিরাপত্তা ব্যবস্থা দিয়ে থাকে। নিউজিল্যান্ড ক্রিকেট দলের জন্যও আমরা সেই ব্যবস্থাই রেখেছি।

প্রধানমন্ত্রী ব্যক্তিগতভাবে নিউজিল্যান্ডের প্রধানমন্ত্রীর সঙ্গে কথা বলেছেন এবং জানিয়েছেন, আমাদের গোয়েন্দা বিভাগ বিশ্বের অন্যতম সেরা। সফরকারি দলের জন্য কোনো ধরনের নিরাপত্তা শঙ্কা নেই এখানে।’





‘নিউজিল্যান্ডের নিরাপত্তা কর্মকর্তারাও আমাদের সরকারের নেয়া নিরাপত্তা ব্যবস্থায় সন্তোষ প্রকাশ করেছিলেন। পিসিবি নির্ধারিত সূচি অনুযায়ী খেলাগুলো চালিয়ে যেতে চেয়েছিল। কিন্তু শেষ মিনিটে এভাবে সফর গুটিয়ে নেয়া পাকিস্তান এবং বিশ্বের সকল ক্রিকেট ভক্তের জন্যই হতাশাজনক ব্যাপার।’