জিম্বাবুয়ে বিপক্ষে হারের পর রমিজ রাজার কঠোর সমালোচনা করলেন মোঃ আমির

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপে পরপর দুই ম্যাচে হারের পর ব্যাপক সমালোচনার মুখে পড়েছে পাকিস্তান জাতীয় ক্রিকেট দল। বিশেষ করে নিজ দেশের সাবেক ক্রিকেটারদের বড় ধরনের আক্রমণের মুখে পড়েছে তারা। সমালোচনা যোগ হয়েছেন পাকিস্তানের একাধিক তারকা ক্রিকেটার।





নিজেদের প্রথম ম্যাচে ভারতের কাছে নাটকীয়ভাবে হারের পর গতকাল নিজেদের দ্বিতীয় ম্যাচে জিম্বাবুয়ের দেওয়া ১৩০ রানই করতে পারেনি পাকিস্তান। পরপর দুটি ম্যাচে হারের কারণে এখন সেমিফাইনালে খেলার সমীকরণ খুবই কঠিন হয়ে দাঁড়িয়েছে পাকিস্তানের জন্য।

জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে হারের পর অধীনায়ক বাবর আজমের দিকে তীব্র সমালোচনার হাত তুলেছেন সাবেক পাকিস্তানি পেসার শোয়েব আক্তার। এবার সেই তালিকায় যোগ হয়েছেন ফার্স্ট বোলার মোঃ আমির। নির্বাচকদের সাথে এবার পিসিবি চেয়ারম্যান রমিজ রাজারও অপসারণ চেয়ে টুইট করেছেন পাকিস্তানের এ সাবেক পেসার।

রমিজ রাজাকে তথাকথিত চেয়ারম্যান উল্লেখ করে আমির টুইটে লিখেছেন, “প্রথম দিন থেকেই বলছি যে বাজে দল নির্বাচন হয়েছে। এখন এই ব্যর্থতার দায় কে নেবে? এই বিষয়ের দায়িত্ব কার? আমার মনে হয় এখনই সময় এই তথাকথিত চেয়ারম্যান যিনি পিসিবির ‘খোদা’ হয়ে রয়েছেন এবং প্রধান নির্বাচক থেকে পরিত্রাণ পাওয়ার সময় এসেছে”।

আর দলের এমন পরিস্থিতিতে বাবরদের তীব্র সমালোচনা করে শোয়েব বলেছেন, “আমি বুঝতে পারছি না কেন এটা বোঝা এত কঠিন আপনাদের জন্য। এটা আমি আগেও বলেছি, আবারও বলছি আমাদের যে টপ এবং মিডল অর্ডার দিয়ে আমরা বড় সাফল্য পেতে পারি”।





“তবে আমরা ধারাবাহিকভাবে জিততে পারছি না। পাকিস্তানের একজন বাজে অধিনায়ক আছে। বিশ্বকাপ থেকে ছিটকে গেছে পাকিস্তান। আমরা যে তিনটি ম্যাচে হেরেছি, নাওয়াজ শেষ ওভারটি করেছে।”

শুধু অধিনায়ক বাবরের নয়, পুরো ম্যানেজমেন্টে ত্রুটি দেখছেন এ সাবেক পেসার, “ওয়ান ডাউনে ব্যাট করতে হবে বাবরকে। শাহীন শাহ আফ্রিদির ফিটনেসের বড় সমস্যা রয়ে গেছে। অধিনায়কত্বের বড় ত্রুটি এবং ম্যানেজমেন্টেও বড় ত্রুটি”।





“আমরা আপনাদের সমর্থন করব, কিন্তু আপনি কোন ব্র্যান্ডের ক্রিকেট খেলছেন? আপনি এমনিভাবে একটি টুর্নামেন্টে যেতে পারেন না এবং আশা করতে পারেন যে প্রতিপক্ষ আপনাকে জিততে দেবে।”