ওপেনিংয়ে নামলেন নাজমুল হোসেন শান্ত এবং মেহেদী হাসান মিরাজ। দুই ওভারে বাংলাদেশের সংগ্রহ ১৮ রান

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রথম প্রস্তুতি ম্যাচে বাংলাদেশকে ১৬১ রানের টার্গেট দিয়েছে আফগানিস্তান। জবাবে ব্যাট করতে নেমেছেন নাজমুল হোসেন শান্ত এবং মেহেদী হাসান মিরাজ। এই প্রতিবেদন লেখা পর্যন্ত দুই ওভারে ১৫ রান সংগ্রহ করেছে বাংলাদেশ। শান্ত ১২ এবং মিরাজ ৫ রান করে অপরাজিত রয়েছেন।





বাংলাদেশের বিপক্ষে টসে জিতে প্রথমে ব্যাটিং করার সিদ্ধান্ত নিয়েছে আফগানিস্তানের অধিনায়ক মোঃ নবী। টসে হেরে প্রথমে বোলিং করতে নেমে বাংলাদেশকে সাফল্য এনে দেন তাসকিন আহমেদ।

দুর্দান্ত খেলতে থাকা হজরতউল্লাহ জাজাইকে ১৯ রানে প্যাভিলিয়নে ফেরান তাসকিন। এরপর আফগানিস্তানকে আরো চেপে ধরেন সাকিব আল হাসান এবং মুস্তাফিজুর রহমান। ইনিংসের নবম ওভারে রহমানউল্লাহ গুরবাজকে প্যাভিলিয়নে ফেরান সাকিব। ১৮ বলে মাত্র ২৬ রান করেন তিনি।

দলীয় ৯৮ রানের মাথায় তৃতীয় উইকেট তুলে নেন তাসকিন আহমেদ। ১২ রান করা দারবিশ রাসুলিকে প্যাভিলিয়নে ফেরান তাসকিন। এরপর ৪৬ রান করা ইব্রাহিম জাদরানকে প্যাভিলিয়নের হাসান মাহমুদ। পরের ওভারেই নজিবউল্লাহ জাদরানকে ৫ রানে প্যাভিলিয়নে ফেরান হাসান মাহমুদ।

১৯ তম ওভারের প্রথম বলেই ওসমান গনিকে ৭ রানে প্যাভিলিয়নে ফেরান সাকিব আল হাসান। তবে ওই ওভারের তৃতীয় বলে মোহাম্মদ নবীর ক্যাচ ছেড়ে দেওয়ার মাশুল গুনতে হয়েছে বাংলাদেশকে। সাকিবের ওই ওভারের শেষ তিন বলে দুটি ছক্কা এবং একটি চার মারেন নবী।

তবে শেষ ওভারের প্রথম বলেই উইকেট তুলে নেন তাসকিন। ১৭ বলে ৪১ রান করেন আফগানিস্তানের অধিনায়ক মোহাম্মদ নবী।





চার ওভার বোলিং করে ২৪ রানের বিনিময়ে দুই উইকেট নিয়েছেন হাসান মাহমুদ। চার ওভার বোলিং করে ৩১ রান দিয়ে কোন উইকেট পাননি মুস্তাফিজুর রহমান। চার ওভারে ৪৬ রান দিয়ে দুটি উইকেটে নিয়েছেন সাকিব আল হাসান। ৩ উইকেট নিয়েছেন তাসকিন আহমেদ।

বাংলাদেশ : সাকিব আল হাসান (অধিনায়ক), নুরুল হাসান, মেহেদী হাসান মিরাজ, সৌম্য সরকার, লিটন দাস, আফিফ হোসেন, মোসাদ্দেক হোসেন, ইয়াসির আলী, নাসুম আহমেদ, মোস্তাফিজুর রহমান, তাসকিন আহমেদ, শরীফুল ইসলাম, ইবাদত হোসেন, হাসান মাহমুদ ও নাজমুল হোসেন।





আফগানিস্তান: মোহাম্মদ নবী (অধিনায়ক), নজিবউল্লাহ জাদরান, ফরিদ আহমেদ, কায়েস আহমেদ, ফজলহক ফারুকি, উসমান গনি, রহমানউল্লাহ গুরবাজ, রশিদ খান, আজমতউল্লাহ ওমরজাই, দারবিশ রাসুলি, মোহাম্মদ সেলিম, নাভিন–উল–হক, মুজিব উর রেহমান, ইব্রাহিম জাদরান ও হজরতউল্লাহ জাজাই।