দুবাইয়ে দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজে খেলবেন না সাকিব আল হাসান। অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান

টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের প্রস্তুতির জন্য আবারো দুবাই যাচ্ছে বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দল। সেখানে সংযুক্ত আরব আমিরাত জাতীয় ক্রিকেটের দলের বিপক্ষে দুইটি আন্তর্জাতিক খেলবে বাংলাদেশ দল। প্রথমে জানা গিয়েছিল দুবাইয়ে এই প্রস্তুতি ক্যাম্পে দুটি প্রস্তুতিতে ম্যাচ খেলবে দুই দল। কিন্তু শেষ পর্যন্ত ম্যাচ দুটি আন্তর্জাতিক ম্যাচ রূপ নিয়েছে।





টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য ১৫ সদস্যে চূড়ান্ত দল ঘোষণা করেছে বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ড। এই দল নিয়েই বিশ্বকাপের প্রস্তুতির জন্য ২২ সেপ্টেম্বর দুবাই যাচ্ছে বাংলাদেশ দল। ২৫ ও ২৭ সেপ্টেম্বর সেখানে স্বাগতিক দলের বিপক্ষে দুটি আন্তর্জাতিক টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। ২৮ সেপ্টেম্বর দেশে ফিরবেন ক্রিকেটাররা।

তবে দুবাই এই টি-টোয়েন্টি সিরিজে থাকছেন না দলের নিয়মিত অধিনায়ক সাকিব আল হাসান। ক্যারিবিয়ান প্রিমিয়ার লিগে খেলার জন্য ইতিমধ্যেই সাকিব আল হাসানকে খেলার অনুমতি দিয়েছে বিসিবি। তাইতো দুবাইয়ের দুই ম্যাচের টি-টোয়েন্টি সিরিজের অধিনায়কের দায়িত্ব পালন করবেন সহ অধিনায়ক নুরুল হাসান সোহান।

বাংলাদেশ ক্রিকেট বোর্ডের প্রধান নির্বাহী নিজামউদ্দীন চৌধুরী সুজন বৃহস্পতিবার মিরপুরে বলেছেন, “সাকিব আল হাসানকে আমরা আগেই তো একটা ঘরোয়া টুর্নামেন্টের জন্য এনওসি (অনাপত্তিপত্র) দিয়েছিলাম। এখনো সেভাবেই পরিকল্পনা আছে”।

“ওই পরিকল্পনার ব্যাপারে (দুবাইয়ে থাকা) ব্যাপারে আমরা এখনো কোনো চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত নেইনি। যেহেতু এটা একটা টিমের প্রস্তুতি এটা টিম ম্যানেজমেন্টই সিদ্ধান্ত নেবেন তাকে ওই সময়টাতে কতটুকু ক্যামব্যাক করে নিয়ে আসা যায় কিংবা দরকার।”





টি-টোয়েন্টি বিশ্বকাপের জন্য বাংলাদেশের চূড়ান্ত স্কোয়াড : সাব্বির রহমান, মেহেদী হাসান মিরাজ, আফিফ হোসেন, মোসাদ্দেক হোসেন, লিটন দাস, ইয়াসির আলী, নুরুল হাসান সোহান (অধিনায়ক), মুস্তাফিজুর রহমান, সাইফুদ্দিন, তাসকিন আহমেদ, এবাদত হোসেন, হাসান মাহমুদ, নাসুম আহমেদ, নাজমুল হোসেন শান্ত।
স্ট্যান্ডবাই : শরিফুল ইসলাম, রিসাদ হোসেন, শেখ মেহেদী হাসান, সৌম্য সরকার।