জুলাইয়ে জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে একটি টেস্ট, তিনটি ওয়ানডে এবং তিনটি টি-টোয়েন্টি সিরিজের চূড়ান্ত সময়সূচি প্রকাশ করলো বিসিবি

বর্তমানে দেশের মাটিতে শ্রীলংকার বিপক্ষে তিন ম্যাচের ওয়ানডে সিরিজ খেলবে টাইগাররা। এই সিরিজের পর ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে খেলবে বাংলাদেশ দলের ক্রিকেটাররা। আর তারপরেই জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে পূর্ণাঙ্গ সিরিজ খেলতে যাবে বাংলাদেশ।





আট বছর পর জিম্বাবুয়ের মাটিতে একটি টেস্ট তিনটি ওয়ানডে এবং তিনটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচ খেলতে যাবে বাংলাদেশ। সূচি অনুযায়ী জিম্বাবুয়ের বিপক্ষে দুই টেস্ট ম্যাচ খেলার কথা ছিল বাংলাদেশের। কিন্তু সেখান থেকে একটি টেস্ট ম্যাচ বাদ দিয়ে একটি টি-টোয়েন্টি ম্যাচের যোগ করেছে দুই দেশের ক্রিকেট বোর্ড।

নতুন সূচিতে জিম্বাবুয়ে সফরে বাংলাদেশ এক টেস্ট, তিন ওয়ানডে ও তিন টি-টোয়েন্টি খেলবে। বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন বিসিবির পরিচালক ও ক্রিকেট পরিচালনা বিভাগের চেয়ারম্যান আকরাম খান, ‘আমরা একটি টেস্ট কমিয়ে একটি টি-টোয়েন্টি বাড়ানোর সিদ্ধান্ত নিয়েছি। জিম্বাবুয়েও আমাদের প্রস্তাবকে সমর্থন করেছে।’

ঘরের মাঠে শ্রীলঙ্কা সিরিজের পর আগামী ৩১ মে থেকে শুরু হচ্ছে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগ। ঢাকা প্রিমিয়ার লিগে খেলবে জাতীয় দলের নিয়মিত ক্রিকেটাররা। যার কারণে পাকিস্তান সুপার লিগ কে না বলে দিয়েছেন সাকিব-আল-হাসান, মাহমুদুল্লাহ রিয়াদ এবং লিটন দাস। ২৪ জুন শেষ হবে ঢাকা প্রিমিয়ার লিগের খেলা।





২৯ জুন দল জিম্বাবুয়ের উদ্দেশ্যে রওনা হবে। ৭ জুলাই টেস্ট দিয়ে শুরু হবে মাঠের লড়াই। এর আগে ৩ ও ৪ জুলাই দুই দিনের প্রস্তুতি ম্যাচ খেলবে বাংলাদেশ। তিন ম্যাচের ওয়ানডে হবে ১৬, ১৮ ও ২০ জুলাই। হারারেতে হবে এই ম্যাচগুলো। একই ভেন্যুতে ২৩, ২৫ ও ২৭ জুলাই হবে টি-টোয়েন্টির লড়াই।