ড্র করতে করতেই একদিন জিততে শিখবে বাংলাদেশ : খালেদ মাহমুদ সুজন

ধারাবাহিকতাই অবশ্য বাংলাদেশ জাতীয় ক্রিকেট দলের সবচেয়ে বড় সমস্যা। ২০১৭ সালের সেপ্টেম্বর থেকে পাল্লেকেলে টেস্টের আগ পর্যন্ত দেশের বাইরে ১৭ ইনিংসে কেবল একবার আড়াইশ ছাড়াতে পারে তারা।

পাল্লেকেলে টেস্টের পারফরম্যান্সে মিলেছে উন্নতির আভাস। প্রথম ইনিংসে ৭ উইকেটে ৫৪১ রান তুলে ইনিংস ঘোষণা করে দল। পাল্লেকেলেতে ড্র করতে পারল বাংলাদেশ। এখান থেকেই এই দলের নতুন শুরু দেখতে চান খালেদ মাহমুদ।

“আমরা যদি এভাবে প্রতিদ্বন্দ্বিতা করতে পারি, প্রায় একটা বছর যদি আমরা ড্র করতে পারি এরকম, ভালো ক্রিকেট খেলতে পারি, ব্যাটসম্যানরা ওপর থেকে দায়িত্ব নিতে পারে, একটা সময় আসবে যখন আমরা টেস্ট ম্যাচ জেতা শিখব। ধারাবাহিকভাবে ম্যাচ জেতা শিখব। ধারাবাহিকতা আমাদের জন্য জরুরি।”





“এক ইনিংস দেখে এত মূল্যায়ন করাটা ঠিক হবে না। আমি বিশ্বাস করি যে, ব্যাটিংয়ের এই ধারাবাহিকতা আমরা ধরে রাখতে পারব। ছেলেরা এখান থেকে ধারাবাহিকভাবে ভালো খেলবে। আগামী ম্যাচ আছে এখানে, সামনে জিম্বাবুয়ে যাব আমরা (জুন মাসে), আমরা যেন উপযুক্ত টেস্ট দল হিসেবে নিজেদের গড়ে তুলতে পারি। এই ছেলেরা যেন গড়ে উঠতে পারে।”