দেবদূত পাডিকালের বিধ্বংসী সেঞ্চুরিতে রাজস্থানের বিপক্ষে ১০ উইকেটে জয়লাভ করলো রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু।

ইন্ডিয়ান প্রিমিয়ার লিগ আইপিএল -এ টানা চতুর্থ ম্যাচে জয়লাভ করলো বিরাট কোহলির দল রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু। মোস্তাফিজুর রহমানের দল রাজস্থান রয়েল ছেড়ে দেওয়া ১৭৮ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে ১০ উইকেটে জয় লাভ করেছে রাজস্থান রয়েলস।

আইপিএলে আজ রয়েল চ্যালেঞ্জার্স ব্যাঙ্গালোর-এর বিপক্ষে টসে হেরে প্রথমে ব্যাট করতে নেমে শুরুতেই ব্যাটিং বিপর্যয়ে পড়ে রাজস্থান রয়েলস। ব্যক্তিগত অর্জন করে এই দিনের শুরুতেই মোহাম্মদ সিরাজের বলে আউট হয়ে প্যাভিলিয়নে ফেরেন জস বাটলার।

পরের ওভারে জেমিসনকে মিড অনের ওপর দিয়ে মারতে গিয়ে কেন রিচার্ডসনের হাতে ক্যাচ আউট হয়েছেন মানান ভোহরা। এবারের আইপিএলে এখন পর্যন্ত জ্বলে ওঠতে না পারা ভোহরা ফিরেছেন ৯ বলে ৭ রান করে।

এদিন থিতু হতে পারেননি ডেভিড মিলারও। সিরাজের ইয়র্কার বলে লেগ বিফোঁরের ফাঁদে পড়ে সাজঘরে ফিরেছেন দক্ষিণ আফ্রিকার এই ব্যাটসম্যান। শুরুতে আম্পায়ার আউট না দিলেও সিরাজের সঙ্গে আলোচনা করে রিভিউ নেন বিরাট কোহলি।

যেখানে দেখা যায় বল ব্যাট লাগার আগে মিলারের পায়ে লাগে। ফলে শূন্য রানে ফিরতে হয় বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যানকে। ভালো শুরু করলেও ইনিংস বড় করতে পারেননি সাঞ্জু স্যামসন।





অষ্টম ওভারে সুন্দরের প্রথম বলে ছক্কা মারার পরের বলেই আউট হয়েছেন দলটির এই অধিনায়ক। মিড উইকেটের ওপর দিয়ে তুলে মারতে গিয়ে ম্যাক্সওয়েল হাতে ক্যাচ দিয়ে ১৮ বলে ২১ রান করে আউট হয়েছেন তিনি।

৪৩ রানে ৪ উইকেট হারিয়ে রাজস্থান যখন ধুঁকছে তখন দলের হাল ধরেন দুবে এবং পরাগ। এই দুজনের জুটি থেকে আসে ৩৯ বলে ৬৬ রান। এই দুজনের জুটি ভাঙেন হার্শাল প্যাটেল। ১৬ বলে ২৫ রান দিয়ে চাহালের হাতে ক্যাচ দিয়ে ফিরেছেন পরাগ। ডানহাতি এই ব্যাটসম্যানের বিদায়ের পর সাজঘরে ফিরেছেন দুবেও।

বাঁহাতি এই ব্যাটসম্যান ফিরেছেন ৩২ বলে ৪৬ রানের গুরুত্বপূর্ণ এক ইনিংস খেলে। শেষ দিকে ব্যাট হাতে আলো ছড়িয়েছেন তেওয়াতিয়া। মাত্র ২৩ বলে খেলেছেন ৪০ রানের ঝড়ো ইনিংস। এ ছাড়া ক্রিস মরিস করেছেন ৭ বলে ১০ রান। শেষ পর্যন্ত নির্ধারিত ২০ ওভারে ৯ উইকেট হারিয়ে ১৭৭ রান সংগ্রহ করে রাজস্থান রয়েলস।

১৭৮ রানের টার্গেটে ব্যাট করতে নেমে দুর্দান্ত শুরু করে রয়েল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরুর দুই ওপেনার বিরাট কোহলি এবং দেবদূত পাডিকাল। ১০ উইকেট হাতে রেখে জয় তুলে নেন তারা। ৫২ বলে ১১ টিচার এবং ৬ টি ছক্কা সাহায্যে ১০১ রান করেন তরুণ ব্যাটসম্যান দেবদূত পাডিকাল। অন্য প্রান্ত থেকে ৪৭ বলে ৬ টিচার এবং তিনটি ছক্কা সাহায্যে ৭২ রান করে অপরাজিত থাকেন বিরাট কোহলি। ৩.৩ ওভারে ৩৪ রান মোস্তাফিজুর রহমান।

রাজস্থান রয়্যালস: জস বাটলার, মানান ভোহরা, সাঞ্জু স্যামসন (অধিনায়ক), শিভাম দুবে, ডেভিড মিলার, রিয়ান পরাগ, রাহুল তেওয়াতিয়া, ক্রিস মরিস, শ্রেয়াস গোপাল, চেতন সাকারিয়া এবং মুস্তাফিজুর রহমান।





রয়্যাল চ্যালেঞ্জার্স বেঙ্গালুরু: বিরাট কোহলি (অধিনায়ক), দেবদূত পাডিকাল, শাহবাজ আহমেদ, গ্লেন ম্যাক্সওয়েল, এবি ডি ভিলিয়ার্স, ওয়াশিংটন সুন্দর, কাইল জেমিসন, কেন রিচার্ডসন, হার্শাল প্যাটেল, মোহাম্মদ সিরাজ এবং যুবেন্দ্র চাহাল।