সাকিব ফিরলে আমরা বসবো। দেখবো সে কি চায় : হাবিবুল বাশার সুমন

নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে ওয়ানডে এবং টি-টোয়েন্টি সিরিজে আশানুরূপ পারফরম্যান্স করে দেখাতে পারেনি বাংলাদেশ দলের তরুণ ক্রিকেটাররা। ব্যাট হাতে ব্যর্থ হয়েছেন ব্যাটসম্যানরা। বিশেষ করে টপ অর্ডার ব্যাটসম্যানদের উদাসীন দেখা গিয়েছে নিউজিল্যান্ড সিরিজে।





তবে নিউজিল্যান্ডের বিপক্ষে তরুণ তরুণ ক্রিকেটারদের ব্যর্থতা দেখে চূড়ান্ত কোনও সিদ্ধান্ত নিতে চান না বাংলাদেশ দলের নির্বাচক হাবিবুল বাশার সুমন। তরুণদের সময় দেওয়া উচিত মনে করেন হাবিবুল, ‘নতুন যারা এসেছে তাদের সময় দিতে হবে। অন্তত ৬ মাস তো দিতে হবে”

“সেটাই কিন্তু আমরা চেষ্টা করছি, পুরোনোদের সঙ্গে নতুনদের আস্তে আস্তে তৈরি করা। কিন্তু আপনি যদি এখনই ধরে নেন এ হবে ও হবে না, তাহলে এটা আমাদের জন্যও মুশকিল, তাদের জন্যও মুশকিল। একটা না একটা সময় নতুন কাউকে আসতেই হবে।’

ঘরের মাঠে ওয়েস্ট ইন্ডিজের বিপক্ষে ব্যাটিং পজিশন পরিবর্তন করেছিল বিসিবি। তিন নম্বর ব্যাটিং পজিশন থেকে সাকিব আল হাসানকে সরিয়ে সেখানে খেলানো হয়েছিল তরুণ টপ অর্ডার ব্যাটসম্যান নাজমুল হোসেন শান্তকে। কিন্তু নিউজিল্যান্ডের সাথে যত কথা থাকলেও তাকে বসিয়ে রেখেছিল নির্বাচকরা।

সেখানে সুযোগ পেয়েও সুযোগ কাজে লাগাতে পারেনি সৌম্য সরকার। তাই নতুন করে আবারো প্রশ্ন জেগেছে তিন নম্বর ব্যাটিং পজিশনে আবারও হয়তো সাকিব আল হাসানকে আনলেই ভালো হবে। তাই আইপিএল থেকে দেশে ফিরলেই সাকিবের সাথে এই বিষয় নিয়ে বসবেন নির্বাচকরা।





এ প্রসঙ্গে বাশার বলেন, ‘দেখুন দুজন খেলেছে। শান্ত খেলেছে, সৌম্যও খেলেছে। সৌম্য তো আমাদের পুরোনো খেলোয়াড়, শান্ত সে হিসেবে নতুন ছিল। সাকিব ফিরলে আমরা দেখবো সে কি চায়, টিম ম্যানেজমেন্টের ভাবনা কি। সেসব নিয়ে আলাপ আলোচনা হবে। আমরা কিন্তু নতুন কাউকে তৈরি করার চেষ্টা করছি। কিন্তু এটা চূড়ান্ত সিদ্ধান্ত না।’